IMG_3822

ই-কমার্স, কুরিয়ার সার্ভিস, খাদ্য ও ওষুধের মতো অত্যাবশকীয় পণ্যের ওয়্যার হাউজ, অপারেশন, পরিবহন ও ডেলিভারিতে সংশ্লিষ্টদের সহযোগিতা করতে দেশের সব বিভাগীয় কমিশনার, জেলা প্রশাসক, পুলিশ সুপারকে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।বৃহস্পতিবার (২ এপ্রিল) এই নির্দেশনা দিয়েছে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়।বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের উপসচিব (অবা-১ শাখা) মোহাম্মদ মনির হোসেন হাওলাদার স্বাক্ষরিত নির্দেশনায় বলা হয়েছে— বর্ণিত অবস্থায় স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলা ই-কমার্স, কুরিয়ার সার্ভিস, খাদ্য ও ওষুধের মতো অত্যাবশকীয় পণ্যের ওয়্যার হাউজ, অপারেশন, পরিবহন, মালামাল স্টোরেজ ও ডেলিভারির সঙ্গে সংশ্লিষ্ট সব ডেলিভারি ম্যান ও যানবাহনকে স্বাভাবিক চলাচলের সুযোগ দেওয়ার জন্য সংশ্লিষ্টদের নির্দেশ দেওয়া হয়।

নির্দেশনায় আরও বলা হয়, ঘরে বসে অনলাইনে প্রয়োজনীয় পণ্য ক্রয়- বিক্রয় একদিকে যেমন জনসাধারণের নৈমিত্তিক প্রয়োজন মেটাচ্ছে, অন্যদিকে তা করোনাভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে সহযোগিতা করছে। ফলে চলমান অবস্থায় ই-কমার্সের মাধ্যমে পণ্য ক্রয়-বিক্রয়কে উৎসাহিত করা এবং এ ক্ষেত্রে সংশ্লিষ্ট ডেলিভারি ম্যান এবং যানবাহনকে স্বাভাবিক চলাচলে সুযোগ দেওয়া নিত্য পণ্যের স্বাভাবিক সরবরাহকে ত্বরান্বিত করবে।

বৃহস্পতিবার (২ এপিল) রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে ই-কমার্স ডেলিভারিতে বাধা দেয় আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। ইন্টারনেট ও ইন্টারনেটনির্ভর জরুরি সেবার ঘোষণা এবং এই সেবা চালুর রাখার অনুমোদনপত্র রাখার পারও কোথাও কোথাও ডেলভারি ম্যানদের মারধর করা হয়। আটকে রাখা হয় ডেলিভারি ভ্যান। রাস্তা থেকে ফিরিয়ে দেওয়া হয় ডেলিভারি ম্যানদের। ই-কমার্স ডেলিভারি নিরবচ্ছিন্ন রাখতে ই-ক্যাবের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে এই নির্দেশনা জারি করলো বাণিজ্য মন্ত্রণালয়।